বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ০১:৩৭ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম
সারিয়াকান্দিতে চরাঞ্চলের ছাত্র-ছাত্রীদের লেখাপড়া রসাতলে শিবগঞ্জের বুড়িগঞ্জ স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সংগ্রহ ও ফরম বিতরণ বগুড়ার আদমদীঘির নাগরনদে অবৈধ বালু উত্তোলন, ভ্রাম্যমান আদালতে দুই জনের কারাদন্ড বগুড়ার আদমদীঘিতে ডোবার পানিতে পড়ে শিশুর মৃত্যু বগুড়ার আদমদীঘিতে ১শ পিস ইয়াবাসহ দুই যুবক গ্রেফতার ধুনট চুনিয়াপাড়া ভূমিহীনদের গৃহ নির্মানের জায়গা পরিদর্শন বগুড়া শিবগঞ্জে রবিশস্য চাষে ব্যস্ত সময় পার করছেন কৃষকরা একমাত্র খেলাধুলাই পারে সমাজের বিভিন্ন অপরাধমূলক কাজ থেকে যুব সমাজকে দূরে রাখতে-গোকুল ইউপি চেয়ারম্যান সবুজ পুলিশিং সেবা মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছানোর লক্ষ্যে বগুড়া সদরে ১৪নং বিট পুলিশিং কার্যক্রম শীর্ষক এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত বগুড়া ডিবি পুলিশের অভিযানে ভূয়া ম্যাজিস্ট্রেট এবং ৫০০ গ্রাম গাঁজাসহ ০২ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

বগুড়ার সাতমাথায় ধর্ষক ও সুদখোর মোজামের বিরুদ্ধে ভুক্তভোগীদের মানববন্ধন

নুরনবী রহমান, আলোকিত বগুড়া: বগুড়ার কাহালু উপজেলার সুদখোর ও ধর্ষক মোঃ মোজাম্মেল হক ওরফে মোজামের (৪০) এর বিরুদ্ধে বিশাল মানব বন্ধন করেছে ভুক্তভোগীগন। বগুড়া শহরের প্রানকেন্দ্র সাতমাথায় এ মানব বন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। এতে কাহালু উপজেলার প্রায় শতাধিক মানুষ অংশ গ্রহণ করেন।

মানববন্ধনে জানা গেছে মোজাম্মেল হোসেন ওরফে সুদারু মোজাম কাহালু পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের পাল্লাপাড়া গ্রামের গুড় বিক্রেতা মোসলেম উদ্দিন ওরফে মোসোর ছেলে। ভুক্তভোগীরা অভিযোগে আরো জানান মোজাম কাহালু উপজেলায় দাদন ব্যবসায়ী সুদারু মোজাম হিসাবেই পরিচিত। সমবায় সমিতির রেজিস্ট্রেশন নিয়ে এনজিও নাম ভাঙ্গিয়ে সুদের রমরমা ব্যবসা করে যাচ্ছে। স্থানীয় সমবায় অফিসের কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে এবং কিছু রাজনৈতিক মহলের নেতাদের ব্যবহার করে সমিতির কার্যক্রম পরিচালনা করছেন।

মানববন্ধনে এলাকার অসংখ ভুক্তভোগীগন, মোছাঃ মর্জিনা বেগম, মোছাঃ ফজিলা বেগম, ছফেলা, শাপলা,ময়না, মন্টু মিয়া ককিল,টগর,জুয়েল,লিটন সহ আশেপাশে অনেকেই এই দাদন ব্যবসায়ী মোজামের বিরুদ্ধে অভিযোগ করে বলেন, আমরা মোজামকে ফাঁকা ব্যাংক চেক দিয়ে ঋন গ্রহণ করি, পরবর্তীতে অতিরিক্ত সূদ সমেদ তা পরিশোধ করে দিয়েও নিজেদের ব্যাংক চেক ফেরত পাইনি বরং মোজাম সেই ফাঁকা চেকে নিজের ইচ্ছেমতো কয়েকগুন টাকার অংক বসিয়ে আমাদের কাছ থেকে টাকা আদায় করার জন্য বিভিন্ন ভাবে চাপ প্রয়োগ ও হুমকি ধামকি প্রদান করে। আমরা টাকা দিতে রাজি না হলে মোজাম তার গুন্ডা বাহিনী দিয়ে আমাদের পরিবারের লোকজনকে উঠিয়ে নিয়ে গিয়ে তার নিজেস্ব টর্চার সেলে মারধোর ও নানান ধরনের নির্যাতন করে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক মহিলা বলেন, মোজাম আমাদের চাকুরী দেয়ার নামে এবং বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করেছে,
থানায় অভিযোগ দিয়েও কোন বিচার পাইনি আমরা।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে কাহালু থানায় একাধিক অভিযোগ এই মোজামের নামে,একাধিক অভিযোগ থাকলেও মোজামের বিরুদ্ধে নেয়া হয়নি কোন আইনগত ব্যবস্থা। জানা গেছে মোজাম কৌশলে সব ম্যানেজ করে নেয়। থানায় অভিযোগকারী মুনছুর রহমান,ফারজানা আক্তার সহ বেশ কয়েকজন এ কথা জানিয়েছেন।

গণমাধ্যমকর্মীরা অভিযুক্ত মোজামের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন আমার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন, এই বলে মোজাম ফোনলাইন কেটে দেন,পরবর্তীতে মোজামের মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করলেও তিনি আর কল রিসিভ করেননি।

প্রায় ঘন্টা ব্যাপি এই মানব বন্ধন কর্মসূচিতে ভুক্তভোগীরা উপরোক্ত বিষয়গুলো ব্যানার, ফেস্টুন ও বক্তব্যের মাধ্যমে তুলে ধরেন। মানব বন্ধন কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন ভুক্তভোগীগনের, মোঃ আবুল খায়ের, মন্টু মিয়া, মোজা হোসেন,মোছাঃ মর্জিনা বেগম, ফজিলা বেগম সহ প্রমূখ।

মানব বন্ধনের বক্তব্যে ভুক্তভোগীরা মোজামের নানান কু-কৃত্তির কথা তুলে ধরেন এবং মোজামকে দ্রæত গ্রেফতার করে তার বিরুদ্ধে তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য প্রসাশনিক মহলের কাছে জোর দাবি জানান, ভুক্তভোগীগন ও কাহালুর সচেতন নাগরিকরা।

সংবাদটি শেয়ার করে সকলের মাঝে ছড়িয়ে দিন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
আলোকিত বগুড়া সম্পাদক ও প্রকাশক কর্তৃক বগুড়া থেকে প্রকাশিত
error: Content is protected !!